25 C
Kolkata
Friday, February 3, 2023
বাড়িরাজনীতিবাবুঘাটে বিজেপির গঙ্গা আরতি কর্মসূচিতে পুলিশী বাধা, মিলল না অনুমতি

বাবুঘাটে বিজেপির গঙ্গা আরতি কর্মসূচিতে পুলিশী বাধা, মিলল না অনুমতি

বিজেপির (BJP) গঙ্গা পুজোর কর্মসূচিতে পুলিশী বাধা। মিলল না অনুমতি। আপত্তি রাজ্য পুলিশের (Kolkata Police)। মঙ্গলবার রাজ্য বিজেপির তরফে বাবুঘাটের (Babughat) কাছে বাজে কদমতলা ঘাটে গঙ্গা আরতি (Ganga Aarti) কর্মসূচির আয়োজন করা হয়েছে। কিন্তু সেই কর্মসূচিতেই কার্যত না করে দিলো পুলিশ। কারণ স্বরূপ রাজ্য পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে, গঙ্গাসাগর মেলার জন্য বিভিন্ন স্থান থেকে বহু পুন্যার্থীরা এসে বাবুঘাটে ভিড় জমাতে শুরু করেছেন। আর পৌষ সংক্রান্তিতে ওই ভিড় আরও বাড়বে। আর সেই একই জায়গায় বিজেপির গঙ্গা আরতি কর্মসূচী পালন করা হলে যানজট তৈরি হবে। যার জেরে পুন্যার্থীদের সমস্যায় পড়তে হবে। একইসঙ্গে কলকাতায় জি-২০ বৈঠকও চলছে। এই সকল কারণগুলির কথা জানিয়ে তাদের তরফে অনুরোধ করা হয়েছে, গঙ্গাসাগর মেলা শেষ হওয়ার পর যেন পুনরায় এই কর্মসূচির অনুমতির জন্য আবেদন করা হয়।

মঙ্গলবার বাবুঘাটে আমাদের গঙ্গা আরতি করার কথা ছিল

সম্প্রতি নমামি গঙ্গে প্রকল্প নিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়-সহ অন্যান্য রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে একটি বৈঠক করেছিলেন। আর তারপরই বিজেপির তরফে একটি গঙ্গা আরতি কর্মসূচির আয়োজন করা হয়েছে। ওই কর্মসূচিতে গঙ্গা আরতি ও একটি নৃত্যনাট্যের আয়োজন করার কথা হয়েছে। এই কর্মসূচিতে বিজেপির রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদার (Sukanta Majumder) থেকে শুরু করে অন্যান্য বিজেপি নেতাদের থাকার কথা রয়েছে। পুলিশের তরফে এই আপত্তির কথা জানার পর সুকান্ত মজুমদার বলেন, “মঙ্গলবার বাবুঘাটে আমাদের গঙ্গা আরতি করার কথা ছিল। সেখানে পুলিশ অনুমতি দিল না। কলকাতা পুলিশ উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে এই কাজগুলি করছে। এদের উদ্দেশ্য হচ্ছে হিন্দুদের যে কোনও অনুষ্ঠানে এভাবে বাধা দেওয়া চেষ্টা করা। তবে আমি কাল ওখানে উপস্থিত থেকে গঙ্গা আরতি করব।

পুলিশও তার মতো চেষ্টা করবে। অবশ্যই কাল এই কর্মসূচি হবে এবং আমি নিজেই ওই অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করব।” রাজ্য পুলিশের এই সিদ্ধান্ত নিয়ে বেজায় বিরক্ত বিজেপির মুখপাত্র শমীক ভট্টাচার্য (Samik Bhattacharya) এই সিদ্ধান্তের কড়া প্রতিবাদ জানিয়েছেন। তিনি বলেন, “অসহিষ্ণুতার রাজনীতির আরেকটা উদাহরণ স্থাপন করল বর্তমান শাসক তৃণমূল কংগ্রেস। এতদিন পর্যন্ত বালিঘাটের দখলদারি ছিল, কয়লা খাদানে থেকে পাথর খাদানের দখলদারি ছিল। এখন মা গঙ্গাকেই দখল করে নিল তৃণমূল। সরকার যেখানে ঘোষণা করেছে, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় যেখানে বলে দিয়েছেন গঙ্গা আরতি করবেন, সেই জন্য বিরোধী দল করতে পারবে না। বিজেপি করতে পারবে না। ওই সময় ওই অঞ্চলের বহু সামাজিক দল বিভিন্ন ধরনের সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান করেন। বহু রাজনৈতিক দলের পক্ষ থেকেও মানুষ গঙ্গাসাগরের পুণ্যার্থীদের সাহায্য করতে যান।”

বাবুঘাটে বিজেপির গঙ্গা আরতি কর্মসূচিতে পুলিশী বাধা, মিলল না অনুমতি

আপনার মতামত দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

%d bloggers like this: