25 C
Kolkata
Monday, October 3, 2022
বাড়িদেশ বিদেশন্যাটোর সম্মেলনে আবারও রাশিয়াকে হুমকি জো বাইডেনের !

ন্যাটোর সম্মেলনে আবারও রাশিয়াকে হুমকি জো বাইডেনের !

প্রায় একমাস অতিক্রম করেছে ইউক্রেন ও রাশিয়ার যুদ্ধ। এখনো লাগাতার রাশিয়া ইউক্রেনের উপর হামলা চালিয়ে যাচ্ছে। রাশিয়াকে গোটা বিশ্বের তরফেই যুদ্ধ থামানোর আর্জি জানানো হচ্ছে। কিন্তু তাতে কর্ণপাত করছেনা রাশিয়া। আমেরিকা ও তার সহযোগী দেশগুলি তার উপর নানা বিধিনিষেধ আরোপ করেছে তাতেও থেমে যায়নি রাশিয়া। এবার রাশিয়াকে চরম হুঁশিয়ারি দিলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন । গতকালই তিনি ইউক্রেনের প্রতিবেশী দেশ পোল্যান্ডে যান। সেখানেই তিনি বলেন, যদি রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন ইউক্রেনের উপরে রাসায়নিক অস্ত্র ব্যবহার করে, তবে ন্যাটো বাহিনী তার যোগ্য জবাব দিতে প্রস্তুত।গতকাল পোল্যান্ডের প্রেসিডেন্ট আন্দ্রেজ দুদারের সঙ্গে দেখা করেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন।

সেখানে রাশিয়া ইউক্রেনের যুদ্ধ পরিস্থিতি নিয়ে দুই দেশের প্রেসিডেন্টের মধ্যে আলোচনা হয়। অপরদিকে গতকালই ব্রাসেলসে ন্যাটোর বিশেষ সম্মেলনেরও আয়োজন করা হয়েছিল । সেখানেও রাশিয়া ও ইউক্রেনের যুদ্ধে ইউক্রেনকে ন্যাটো বাহিনী কিভাবে সাহায্য করবে তা নিয়ে আলোচনা করা হয়। ন্যাটোর বৈঠক শেষের পর জো বাইডেন বলেন, “যদি রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন ইউক্রেনের উপরে রাসায়নিক অস্ত্র ব্যবহার করে, তবে তার যোগ্য জবাব দেবে ন্যাটো বাহিনী। কী ধরনের অস্ত্র ব্যবহার করছেন ওনারা বা সেই অস্ত্রের প্রভাবই বা কতটা, তার উপরই আমাদের অস্ত্রের প্রকৃতিও নির্ভর করবে।” বাইডেন আরও বলেন , ইউক্রেনের উপরে অকারণে রাশিয়া যেভাবে হামলা চালিয়েছে, তার যোগ্য জবাব দিতেই রাশিয়ার সমস্ত আন্তর্জাতিক অনুদান বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

জো বাইডেন বলেন, অনুদান বন্ধ করায় রাশিয়ার সমস্যা বাড়ছে

এবং দীর্ঘ সময় ধরে যাতে এই অনুদান বন্ধ থাকে, তার জন্যই ন্যাটোর এই জরুরি সম্মেলনের আয়োজন করা হয়েছিল। জো বাইডেন বলেন, “অনুদান বন্ধ করায় রাশিয়ার সমস্যা বাড়ছে। আমি ন্যাটোর এই বৈঠক ডেকেছি যাতে এক মাস বাদেও এই অনুদান বন্ধের সিদ্ধান্তই জারি রাখা হয়। শুধুমাত্র পরের মাসের জন্য, আগামিদিনগুলিতেও, কমপক্ষে এক বছরের জন্য এই সিদ্ধান্ত জারি রাখা হয়। এভাবেই রাশিয়াকে আটকাতে হবে।”চলতি বছরের ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনের উপরে সামরিক অভিযান শুরু করে রাশিয়া। তারপরই আমেরিকা, ইউরোপীয় ইউনিয়ন সহ একাধিক দেশ রাশিয়াকে আর্থিক অনুদান বন্ধ করে দেয়। যারফলে রাশিয়ার অর্থনীতি বড়সড় ধাক্কা খায়। গতকালও ওয়াশিংটনের তরফে নতুন করে অনুদানপ্রেসিডেন্ট বাইডেন জানান, ইউক্রেনের উপরে বিনা প্ররোচনায় যেভাবে হামলা চালিয়েছে, তার কড়া জবাব দিতেই রাশিয়ার সমস্ত আন্তর্জাতিক অনুদান বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। দীর্ঘ সময় ধরেই যাতে এই অনুদান বন্ধ থাকে, তার জন্যই ন্যাটোর এই জরুরি সম্মেলনের আয়োজন করা হয়েছিল।

জো বাইডেন বলেন, “অনুদান বন্ধ করায় রাশিয়ার সমস্য়া বাড়ছে। আমি ন্যাটোর এই বৈঠক ডেকেছি যাতে এক মাস বাদেও এই অনুদান বন্ধের সিদ্ধান্তই জারি রাখা হয়। শুধুমাত্র পরের মাসের জন্য, আগামিদিনগুলিতেও, কমপক্ষে এক বছরের জন্য এই সিদ্ধান্ত জারি রাখা হয়। এভাবেই ওকে (ভ্লাদিমির পুতিন) আটকাতে হবে।”উল্লেখ্য়, গত ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনের উপরে সামরিক অভিযান শুরু করে রাশিয়া। এরপরই আমেরিকা, ইউরোপীয় ইউনিয়ন সহ একাধিক দেশ রাশিয়ার আর্থিক অনুদান বন্ধ করে দেয়। এর জেরে বড় ধাক্কা খায় রাশিয়ার অর্থনীতি। গতকাল ওয়াশিংটনের তরফে নতুন করে অনুদান বন্ধের ঘোষণা করা হয়। কিন্তু রাশিয়া নিজের জায়গায় অনড়। এমন সিদ্ধান্তে কি পিছনে সড়বে রাশিয়া? তা সময় বলবে ।

ন্যাটোর সম্মেলনে আবারও রাশিয়াকে হুমকি জো বাইডেনের !

আপনার মতামত দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

%d bloggers like this: