25 C
Kolkata
Monday, December 5, 2022
বাড়িদেশ বিদেশসত্যিই কি তৃণমূল ও আইপ্যাকের বিচ্ছেদ ? মুখ খুললেন মহুয়া

সত্যিই কি তৃণমূল ও আইপ্যাকের বিচ্ছেদ ? মুখ খুললেন মহুয়া

পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী হবার পর এভার তৃণমূল সুপ্রিমোর চোখ দিল্লির সিংহাসনে । যার ফলে তাকে অন্যান্য রাজ্যে ভোটের প্রচারে যেতে দেখা যাচ্ছে। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এর মধ্যে গোয়ায় আসন্ন পুর ভোটের জন্য অনেকবারই গোয়া সফরে যান । এখন হঠাৎ শোনা যাচ্ছে আইপ্যাকের সঙ্গে কি তৃণমূলের সম্পর্কে ইতি পরতে চলেছে । কাল সকাল থেকেই রাজনৈতিক মহলে এমনই প্রণো ঘোরাফেরা করছে । সূত্রের দ্বারা খবর , মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে SMS বিনিময় হয় প্রশান্ত কিশোরের। প্রশান্ত কিশোর মমতাকে জানান , আইপ্যাক বাংলা, ত্রিপুরা ও মেঘালয়ে তৃণমূলের সাথে কাজ করতে নারাজ । মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এর উত্তরে তাকে ধন্যবাদ লেখেন। তারপরেই জোর জল্পনা শুরু হয় আইপ্যাক ও তৃণমূলের বিচ্ছেদ নিয়ে।কিন্তু আইপ্যাকের পক্ষ থেকে সমস্ত বিষয়টি গোড়া থেকে খারিজ করে দেওয়া হয় ।

মহুয়া মৈত্র বলেন, আমরা আইপ্যাকের সাথে একযোগে কাজ করছি এবং আমরা তা চালিয়ে যাব

একজন আইপ্যাক কর্মী একটি সাক্ষাৎকারে বলেন, “এগুলো ভিত্তিহীন জল্পনা। কোনও টেক্সট মেসেজের আদান প্রদান করা হয়নি। আইপ্যাক সক্রিয়ভাবে তৃণমূলের সাথে কাজ করছে। আমাদের লোকেরা এই মুহূর্তে গোয়াতে তৃণমূল নেতাদের সঙ্গে বৈঠক করছেন।” এই বিষয়ে গোয়ায় তৃণমূলের নির্বাচন কমিটির দায়িত্বে থাকা সাংসদ মহুয়া মৈত্র বলেন, “আমরা আইপ্যাকের সাথে একযোগে কাজ করছি এবং আমরা তা চালিয়ে যাব। বাংলার মিডিয়ার একটি অংশ ভুল তথ্য দিচ্ছেন ৷” কিন্তু অন্যান্য রাজ্যে আইপ্যাক তৃণমূলের সাথে আছে কিনা তা এখনো জানা যাচ্ছে না । কিছুদিন আগে এক আইপ্যাক কর্মী একটি সাক্ষাৎকারে দাবি করেন , বর্তমানে বাংলায় তৃণমূলের হয়ে কাজ করছে না আইপ্যাক ।

তিনি আরও বলেন, গত বিধানসভা নির্বাচনের পরেই বাংলায় তৃণমূলের হয়ে আইপ্যাক কাজ করছেনা । কিন্তু কলকাতা পুরভোটে সল্টলেকে আইপ্যাকের অফিসে ব্যস্ততার ছবি নজরে আসে । কদিন আগে আসন্ন পুরভোটে ১০৮টি পুরসভার প্রার্থীতালিকা প্রকাশের দিন আইপ্যাকের অফিসে অনেক রাত অবধি কর্মীরা ছিলেন । জানা যাচ্ছে , তৃণমূল ও আইপ্যাক দ্বন্ধ শুরু হয় প্রার্থী তালিকা প্রকাশের দিন থেকে। সেদিনও তৃণমূলের মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের সঙ্গে প্রশান্ত কিশোরের বিবাদ বাধে । ঝামেলা হয় তৃণমূলের ওয়েবসাইট ও সরকারি সোশ্যাল মিডিয়া হ্যান্ডেলে প্রার্থী তালিকা প্রকাশ করা নিয়ে । যারফলে বিভ্রাট দেখা যায়। এবং তারপরই দলের মধ্যে অন্তর্দ্বন্দ্ব প্রকাশ্যে আসে ।এর জন্য দলকে বার বার অস্বস্তিতে পড়তে হচ্ছে । তৃণমূল সুপ্রিমোকে আইপ্যাক নিয়ে প্রশ্ন করলে তা তিনি এড়িয়ে যান । যার ফলে এখনও একটা প্রশ্ন চিহ্ন থেকেই যাচ্ছে ।

সত্যিই কি তৃণমূল ও আইপ্যাকের বিচ্ছেদ ? মুখ খুললেন মহুয়া

আপনার মতামত দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

%d bloggers like this: