25 C
Kolkata
Monday, October 3, 2022
বাড়িরাজনীতিপরিস্থিতি ঠিক থাকলে নির্দিষ্ট সময়ে ভোট করাতে চাইছে নির্বাচন

পরিস্থিতি ঠিক থাকলে নির্দিষ্ট সময়ে ভোট করাতে চাইছে নির্বাচন

যে হারে কোরনা সংক্রমন বৃদ্ধি পাচ্ছে সেই দিকে লক্ষ্য রেখেই বাংলায় উপনির্বাচন পিছিয়ে দেওয়া হয় । চলতি বছরের মার্চ মাসেই আসানসোল লোকসভা এবং বালিগঞ্জ বিধানসভা কেন্দ্রের উপনির্বাচন হবার সম্ভবনা আছে । পরিস্থিতি ঠিক থাকলে নির্দিষ্ট সময়ে ভোট করাতে চাইছে নির্বাচন কমিশন । কিন্তু এর আগে চারটি পুরসভার নির্বাচন আছে । এর মধ্যেও আসানসোল আছে । একদিকে বিজেপির সাংসদ বাবুল সুপ্রিয় তার পদ ছেড়ে তৃণমূলে যোগ দিয়েছেন। আবার রাজ্য মন্ত্রিসভার শীর্ষ মন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায় প্রয়াত হয়েছেন। এই দুটি আসনই এখন ফাঁকা আছে ।

বলা হচ্ছে ফেব্রুয়ারি মাসের প্রথম সপ্তাহেই এই দুটি নির্বাচন করার জন্য বিজ্ঞপ্তি জারি করতে হবে । নির্বাচন কমিশন সূত্রে জানা যাচ্ছে এর প্রস্তুতি শুরু হয়ে গেছে ।এর পরের বছরেই অর্থাৎ ২০২৪ সালে লোকসভা নির্বাচন আছে । এবং রাজ্যের পরবর্তী বিধানসভা নির্বাচন আছে ২০২৬ সালে ৷ ফলে আগে ভাগেই এই উপনির্বাচন করিয়ে নিতে চায় নির্বাচন কমিশন ।এই উপনির্বাচন পুরোটাই নির্ভর করছে কোরনা পরিস্থিতির উপর ৷ এখন চার পুরসভার নির্বাচন কোরণার জন্য পিছিয়ে দিতে হয় । যেহেতু পরিস্থিতি অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে তাই এখনই ভোটের সিদ্ধান্ত নিতে চায় নির্বাচন কমিশন ।

এখনও সরকারি পক্ষ থেকে উপনির্বাচনের বিষয়ে কোনো বিজ্ঞপ্তি জারি করা হয় নি।এর আগের কয়েকটি উপনির্বাচনে ব্যাপক হারে জয় লাভ করে তৃণমূল । অনেকদিন ধরেই রাজ্য বিজিপিতে অন্তর্দ্বন্ধ দেখা যাচ্ছে । এই কারণে তৃণমূল এগিয়ে আছে বলেই মনে করা হচ্ছে। রাজ্যের শাসকদল প্রস্তুতিও নিচ্ছে জোর দমে। কিন্তু আসানসোলে বিজেপি এখনও শক্তিশালী আছে । ফলে সেখানে সংগঠন শক্তিশালী করতে চাইছে তৃণমূল । উত্তরপ্রদেশের শেষ দফার নির্বাচন ৭ মার্চ হবে। মনে করা হচ্ছে তার পরেই বাংলায় এই উপনির্বাচন হবে । তবে সমস্তটাই কোরনা গ্রাফের উপর নির্ভর করছে ।

পরিস্থিতি ঠিক থাকলে নির্দিষ্ট সময়ে ভোট করাতে চাইছে নির্বাচন

আপনার মতামত দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

%d bloggers like this: