25 C
Kolkata
Thursday, December 1, 2022
বাড়িলাইফস্টাইলইউপিআই পেমেন্টের সময় নিয়ম গুলি মেনে চলুন, প্রতারিত হওয়ার সম্ভবনা কমবে

ইউপিআই পেমেন্টের সময় নিয়ম গুলি মেনে চলুন, প্রতারিত হওয়ার সম্ভবনা কমবে

অনলাইন পেমেন্ট সিস্টেম বা ইউপিআই (UPI) পেমেন্ট এখন মানুষের রোজকার জীবনের একটি গুরুত্বপূর্ণ অংশ। পকেটে কিংবা মানিব্যাগে বেশি পরিমাণ নগদ টাকা রাখার দিন এখন প্রায় অতীত। বেশির ভাগ মানুষই এখন ক্যাশলেস অনলাইন পেমেন্ট বা ইউপিআই পেমেন্ট সিস্টেম ব্যবহার করেন। উল্লেখ্য, করোনা মহামারী কালে ন্যাশনাল পেমেন্টস কর্পোরেশন অফ ইন্ডিয়ার এই ইনস্ট্যান্ট রিয়েল-টাইম পেমেন্ট সিস্টেমটির ব্যবহার বহুল মাত্রায় বৃদ্ধি পেয়েছে। হাতে একটি স্মার্টফোন এবং ইন্টারনেট কানেকশন থাকলেই UPI-এর মাধ্যমে কয়েক মিনিটের মধ্যে টাকা ট্রান্সফার, পেমেন্ট, বিল পরিশোধ, রিচার্জ সহ একাধিক কাজ খুব তাড়াতাড়ি করা যায়।

সেই কারণেই অধিকাংশ মানুষের কাছে এই পরিষেবাটি বেশ গ্রহণযোগ্য হয়ে উঠেছে। তবে সব কিছুরই ভালো-খারাপ দুটি দিকই আছে। এক্ষেত্রে অনলাইন পেমেন্ট বা ইউপিআই পেমেন্ট সিস্টেমের ভালো খারাপ দুটি দিক বর্তমান। অনলাইন পেমেন্টে মাধ্যমে যথাযথ সতর্কতা অবলম্বন না করলে ইউজারদের ভয়ঙ্কর রকমের বিপদের মুখোমুখি হওয়ার সম্ভাবনা প্রবল। রোজকার জীবনের অংশ হয়ে ওঠার কারণে হ্যাকাররা এটিকে হাতিয়ার করে মানুষকে প্রতারিত করে তাদের কাছ থেকে বহু টাকা চুরি করছে। কিন্তু পেমেন্ট করার সময় যদি কয়েকটি বিষয় মাথায় রাখা যায়, তাহলে জালিয়াতির সম্ভবনা কমে যায়।

ইউপিআই পেমেন্টের সময় আপনার টাকা চুরির সম্ভবনা থাকবে না

সাইবার নিরাপত্তা এবং নিরাপদ ইউপিআই ট্রানজ্যাকশন সম্পর্কে গ্রাহকদের সচেতনতা বৃদ্ধি করতে স্টেট ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার (SBI) তরফে বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ টিপস দেওয়া হয়েছে। জেনে নিন কোন পাঁচটি পদ্ধতি ব্যবহার করলে অনলাইন পেমেন্ট সিস্টেম বা ইউপিআই পেমেন্টের সময় আপনার টাকা চুরির সম্ভবনা থাকবে না – ১) আপনি যদি ইউপিআইয়ের মাধ্যমে কোনও ব্যক্তির কাছ থেকে টাকা রিসিভ করেন, সেক্ষেত্রে আপনার ইউপিআই পিন এন্টারের কোনো প্রয়োজন নেই। ইউপিআই সিস্টেম মারফত ট্রানজ্যাকশনের ক্ষেত্রে কোনও ব্যক্তি যখন কাউকে টাকা পাঠায়, কেবলমাত্র তখনই ইউপিআই পিনের প্রয়োজন হয়।

তাই টাকা রিসিভ করার সময় যদি আপনার কাছ থেকে কেউ ইউপিআই পিন নম্বরটি চায় তখন আপনাকে সতর্ক হতে হবে। ২)
যখনই আপনি একটি কিউআর (QR) কোড বা ফোন নম্বরের মাধ্যমে কোনও কাউকে ইউপিআই পেমেন্ট করছেন, তখন তার পরিচয় অবশ্যই ক্রস-চেক করে দেখে নিন। কোনো অপরিচিত ব্যক্তিকে কখনই কিউআর কোড বা ফোন নম্বরের মাধ্যমে টাকা পাঠাবেন না। ৩) ‘কালেক্ট রিকোয়েস্ট’ ফিচারটিকে ব্যবহার করে বহু প্রতারক টাকা চুরি করে। সাধারণ মানুষকে টাকার লোভ দেখিয়ে টাকা লাভের আশায় ইউপিআই অ্যাপের ‘কালেক্ট রিকোয়েস্ট’ ফিচারটিকে ব্যবহার করতে বলে।

নির্দিষ্ট সময় অন্তর UPI পিন পরিবর্তন করুন

এই ফিচারটি ব্যবহার করলে নিজের অ্যাকাউন্টে বেশ কিছু টাকা আসবে, এই কথা ভেবে ইউজাররা ফিচারটিকে এনাবেল করে দেন। কিন্তু বেশির ভাগ ক্ষেত্রে দেখা যায়, তাদের অ্যাকাউন্টে টাকা আসার পরিবর্তে তারা প্রতারকদের সাইবার জালিয়াতির শিকার হন তারা। কার্যত সর্বস্বান্ত হন তারা। ৪) কখনো কারোর সাথে ইউপিআই পিন শেয়ার করবেন না। ৫) ATM (এটিএম) পিনের মতো নির্দিষ্ট সময় অন্তর UPI পিন পরিবর্তন করুন। কারণ আপনি যদি কখনো দুর্ঘটনা বশত কারোর সাথে আপনার UPI পিনটি শেয়ার করে থাকেন, সেক্ষেত্রে UPI পিন পরিবর্তন করলে বিপদের আশঙ্কা এড়ানো যায়।

ইউপিআই পেমেন্টের সময় নিয়ম গুলি মেনে চলুন, প্রতারিত হওয়ার সম্ভবনা কমবে

আপনার মতামত দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

%d bloggers like this: