25 C
Kolkata
Sunday, September 25, 2022
বাড়িদেশ বিদেশনবান্ন অভিযানের শুরুতেই তিন মুখ্য নেতৃত্ব ময়দান ছাড়ায় ক্ষুব্ধ কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব

নবান্ন অভিযানের শুরুতেই তিন মুখ্য নেতৃত্ব ময়দান ছাড়ায় ক্ষুব্ধ কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব

মঙ্গলবার বিজেপির (BJP) নবান্ন অভিযানের (Nabanna Rally) শুরুতেই দলের তিন মুখ্য নেতৃত্ব তথা শুভেন্দু অধিকারী (Suvendu Adhikari), সুকান্ত মজুমদার (Sukanta Majumder), দিলীপ ঘোষ (Dilip Ghosh) ময়দান ছাড়ার কারণে ক্ষুব্ধ বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব। কর্মী সমর্থকদের সামনে এগিয়ে দিয়ে শুভেন্দু, সুকান্ত ও দিলীপরা কেন নিজেদেরকে গুটিয়ে নিলেন, সেই নিয়ে প্রশ্ন তুলেছে কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব। জানা গিয়েছে, নেতৃত্বের এমন আচরন কর্মীদের উপরে নেতিবাচক প্রভাব ফেলে। এই কারণে পরবর্তী কর্মসূচিতে কর্মী সমর্থকদের যুক্ত করা কঠিন হবে। সেই জন্যই ভবিষ্যতে এই ধরনের কর্মসূচি গ্রহণ করার আগে পাঁচবার ভাবনাচিন্তা করে সিদ্ধান্ত নেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

সূত্রের খবর, রাজ্যের এই তিন নেতাদের ভূমিকায় কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের নেতারা এতটাই ক্ষুব্ধ যে রাজ্যে রাষ্ট্রপতি শাসনের দাবি খারিজ করে আদালতের উপর ভরসা রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। উল্লেখ্য, কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব নেতারা প্রকাশ্যে বঙ্গ বিজেপির পাশে দাঁড়িয়েছে। একইসঙ্গে কেন্দ্রীয় নেতৃত্বএর নেতা তথা রবিশংকর প্রসাদ ও অমিত মালব্য শান্তিপূর্ণ আন্দোলনে রাজ্য সরকার ও পুলিশের ভূমিকার কড়া সমালোচনা করছেন। প্রসঙ্গত, মঙ্গলবার বঙ্গ বিজেপির নবান্ন অভিযান নিয়ে দিল্লির নেতারা তুমুল উৎসাহী ছিলেন। কিন্তু দিনের শেষে তাদের সেই উৎসাহ হতাশায় পরিণত হয়। মঙ্গলবারের ঘটনার পর শীর্ষ নেতৃত্ব মতে যেভাবে দলের নেতারা নবান্ন অভিযানের রাশ নিজেদের হাতে না রেখে কর্মীদের উপর ছেড়ে দিয়েছিলেন তা একদমই ঠিক হয়নি।

মনে করা হচ্ছে সেই বৈঠকে নবান্ন অভিযানে নেতৃত্বের পলায়নমুখী মনোভাব নিয়ে আলোচনা হবে

সূত্রের খবর, এই সপ্তাহে কেন্দ্রীয় নেতাদের বঙ্গ বিজেপি নেতৃত্বের সঙ্গে বৈঠকের কথা রয়েছে। মনে করা হচ্ছে সেই বৈঠকে নবান্ন অভিযানে নেতৃত্বের পলায়নমুখী মনোভাব নিয়ে আলোচনা হবে। কিন্তু এই বৈঠকের পূর্বে মঙ্গলবার নবান্ন অভিযানের সবিস্তার রিপোর্ট চাওয়া হয়েছে। প্রসঙ্গত, মঙ্গলবারের নবান্ন অভিযানে বঙ্গের দায়িত্বপ্রাপ্ত কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের নেতারা বঙ্গ পার্টির তিন হেভিওয়েট নেতাকে শেষ পর্যন্ত মাটি কামড়ে লড়াই করার নির্দেশ দিয়েছিল। কিন্তু বাস্তবে ঠিক তার উল্টো ঘটনা ঘটে। এদিন অভিযান শুরু হওয়ার কয়েক মিনিটের মধ্যেই লড়াইয়ের ময়দান ছাড়েন বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী। দলের সর্বভারতীয় সহ-সভাপতি দিলীপ ঘোষ কলেজ স্ট্রিট চত্বরে ঘোষণা করেন নবান্ন অভিযান শেষ। আর বিজেপির রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদার স্বেচ্ছায় গ্রেপ্তার বরণ করে নিয়েছিলেন।

নবান্ন অভিযানের শুরুতেই তিন মুখ্য নেতৃত্ব ময়দান ছাড়ায় ক্ষুব্ধ কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব

আপনার মতামত দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

%d bloggers like this: