25 C
Kolkata
Monday, October 3, 2022
বাড়িদেশ বিদেশকামান বন্দুকের সামনে বুক চিতিয়ে দাঁড়িয়ে দেশেকে রক্ষা করেছি। কিন্তু দেশ আমার...

কামান বন্দুকের সামনে বুক চিতিয়ে দাঁড়িয়ে দেশেকে রক্ষা করেছি। কিন্তু দেশ আমার ছেলেটাকে বাঁচাতে সাহায্য করল না: মেজর হরি রাম দুবে।

নিজস্ব সংবাদদাতা, অর্পিতা মন্ডল- সংক্রমণ প্রতিনিয়ত বেড়েই চলেছে। মৃত্যু ভয়ে আতঙ্কিত সাধারণ মানুষ। বাড়ছে মৃতের সংখ্যাও। পরিস্থিতির অবনতি হয়েছে উত্তরপ্রদেশেও। সেখানকার স্থানীয় মানুষের অভিযোগ, প্রশাসন যে দৈনিক পরিসংখ্যান প্রকাশ করছে, তার থেকে অনেকটাই তফাৎ রয়েছে বাস্তবের। উত্তরপ্রদেশের কানপুরের অবস্থা খুবই শোচনীয় বলে জানা গিয়েছে। সক্রিয় রোগীর সংখ্যা বাড়ায় ঘাটতি পড়েছে অক্সিজেন ও বেডের।

এমনি এক পরিস্থিতির স্বীকার হলেন কার্গিল যুদ্ধের নায়ক সুবেদার মেজর হরি রাম দুবে। বর্তমানে তিনি অবসরপ্রাপ্ত। তাঁর ছেলে কোভিড -১৯ এ আক্রান্ত হয়ে প্রাণ হারিয়েছেন। ছেলের মৃত্যুতে ভেঙে পড়ে প্রবীণ নায়ক জানিয়েছেন, তাঁর ছেলের মৃতদেহ শেষবার দেখার জন্য তাঁকে দীর্ঘক্ষণ অপেক্ষাও করতে হয়েছে।

হরি রাম বাবু জাতীয় স্তরের এক সংবাদ সংস্থাকে বলেন,”আমি ১৯৮১ সাল থেকে ২০১১ অবধি আমার মাতৃভূমিকে সেবা করেছি। কার্গিল থেকে বারমুল্লা থেকে লাদাখ এবং লুকুং পর্যন্ত বিভিন্ন জায়গা থেকে শত্রুপক্ষের থেকে আগলে রেখেছিলাম দেশকে। আমি বারামুল্লায় সন্ত্রাসদের নির্মূল করেছি। কারগিলে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে লড়াই করেছি, কামান বন্দুকের সামনে বুক চিতিয়ে দাঁড়িয়ে দেশেকে রক্ষা করেছি। কিন্তু দেশ আমার ছেলেটাকে বাঁচাতে সাহায্য করল না। দেশের স্বাস্থ্যের করুণ ব্যবস্থাপনা আমার ছেলে অমিতাভকে মেরে ফেলল। ”

তাঁর কথায়, “স্ত্রী, কন্যা এবং পুত্রবধূকে সঙ্গে নিয়ে অমিতাভের নিথর দেহটি একবার দেখার জন্য প্রখর রোদে দাঁড়িয়েছিলাম দীর্ঘক্ষণ। কেউ একটু সাহায্য করলেন না। অথচ আমি দেশকে বাঁচানোর জন্য এমনই কঠিন দায়িত্ব সামলেছি, তার জন্য সেনাবাহিনীর প্রধান আমায় শংসাপত্র দিয়ে সম্মান করেছেন।”

দেশের এমন পরিস্থিতিতে স্তম্ভিত গোটা দেশ। মেজর হরি রাম দুবে-এর এমন অবস্থায় শোক প্রকাশ করেছেন অনেকই।

আপনার মতামত দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

%d bloggers like this: